আরব আমিরাত প্রতিনিধিঃ

বাংলাদেশ কনস্যুলেট দুবাই উত্তর আমিরাতের আয়োজনে অনুষ্টিত হয় ২২ জুন ২০১৯, রোজ শনিবার সন্ধ্যায় স্কুলের অভিবাবক, শিক্ষক, কর্মচারীর সাথে কনসাল জেনারেল মোহাম্মদ ইকবাল হোসেন খাঁন এর মতবিনিময় সভা।

বিজ্ঞাপন

রাস আল খাইমায় লাল সবুজের পতাকাবাহী প্রতিষ্ঠান সকলের প্রাঁণ প্রিয় স্কুল।যার প্রতিষ্ঠাতা হলো বাংলাদেশ সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্র। দুবাই উত্তর আমিরাতে একমাত্র বাংলাদেশী স্কুল হলো রাকের কমিনিউটি স্কুল।

১৯৯১/৯২ সনে প্রতিষ্ঠা পাওয়া এই স্কুল প্রগিযোগীতায় ঠিকে থাকতে পারেনি এতো বছর পরে এসে ও।তার মূলে রয়েছে অব্যবস্থাপনা আর অযোগ্য নেতৃত্ব।এখনো এই বিদ্যানিকেতন এর সমস্যার শেষ নেই।
তার মূল কারণ কতিপয় স্বার্থপর নেতৃত্ব। যারা প্রতিষ্ঠানটিকে নিজের ব্যক্তিগত সম্পত্তি হিসাবে ব্যবহার করে নিজেদের আখের গুছিয়েছে।
অভিবাবকদের অভিযোগ ক্ষোভ শুনে আগত অনেক অতিথি আক্ষেপ করে বলতে শুনা যায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিচালিত করতে নির্লোভ আর সুশিক্ষিত নেতৃত্ব প্রয়োজন।
বর্তমান দুবাই কনসাল জেনারেল স্কুলটিকে সময়উপযোগী আধুনিক শিক্ষাব্যবস্থা নিশ্চিত করতে দিকনির্দেশনা দিচ্ছেন এবং সার্বিক সহয়তা করছেন।
অনেক অভিবাবক এর বক্তৃতা শুনে মনে হলো এতোদিন পর জিম্মি দশা হতে মুক্তি পেয়েছে এই মানুষ গুলো।
ক্ষমতার অপব্যবহার আর দাম্ভিকতার নিষ্পেষণে প্রজন্মের অনেক ছাত্র ছাত্রী ইতি টেনেছেন পড়াশুনার এবং কেউ কেউ নিজের সন্তানকে সরিয়ে নিয়েছে অন্যস্কুলে।
গতকাল রাস আল খাইমাহ হোটলে অভিবাবক,শিক্ষক কর্মচারীর সাথে মত বিনিময় এক পর্যায়ে পরিণত হয় আনন্দ উচ্ছাসে।মানুষ মুহু মুহু করতালিতে সমর্থন প্রর্দশন করেন ভারপ্রাপ্ত সভাপতি তাজউদ্দীন কে দায়িত্ব প্রদান করায়।
কেন্দ্র এর কর্মকর্তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান তারা।
মান্যবর কনসাল জেনারেল ইকবাল হোসেন খাঁন বলেন এই স্কুল পরিণত হবে সরকারী পৃষ্টপোষাকতা আর সর্বজনীন সহযোগীতায় উন্নত বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে। সমস্যার সমদান করা হবে মাননীয় প্রদান মন্ত্রীর নির্দেশ মতে।
সহসা নতুন জায়গায় সঠিক পরিকল্পনায় প্রতিষ্ঠা হবে জাতির পিতার নামে বঙ্গবন্ধু সেঞ্চিনিয়াল স্কুল।যেখানে সম্পূর্ণ কাজ শেষ হবার পর হস্তান্তর হবে বর্তমান স্কুল।আগামী ২০২০ সালের ১৭ মার্চ বঙ্গবন্ধু এর জন্মশতবার্ষিকীর পূর্বে কাজ শেষ হবে এই স্কুলের।
আরো উপস্হিত ছিলেন ডঃআলি রেজা খাঁন,প্রকৌশলী আবু জাপর,আব্দুল আলিম,অধ্যাপক আবদুস সবুর,আয়ুব আলী বাবুল,মোহাম্মদ সেলিম উদ্দিন চৌধুরী,শেখ আবদুল করিম,মসিউল আলম পাটোয়ারি, ভারপ্রাপ্ত সভাপতি তাজউদ্দীন,স্কুল অধ্যক্ষ এবং শিক্ষক শিক্ষিকা বৃন্দ।
বাংলাদেশ সামাজিক ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্র এর কর্মকর্তাদের মধ্যে উপস্হিত ছিলেন এম এ মুছা,মোশরফ হোসেন,সাহাব উদ্দিন,সদস্য জাপর চৌধুরী,সাইফুল আলম,মোমিন মুন্সী, উত্তম কুমার, কাজল রায়, প্রকৌশলী মহিউদ্দিন বেলাল, আবুল মনসুর,রোমান,সাইফু উদ্দিন সহ প্রমুখ।

(Visited 1 times, 1 visits today)

আরও পড়ুন

এবার মেয়েসহ করোনায়…
মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর অনুদান…
মুক্তাগাছায় বিশ্ব জনসংখ্যা…
মরহুম ফজলে রাব্বি…
অবশেষে জনসম্মুখে মাস্ক…
বিশ্বে একদিনে করোনার…
বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবর্ষে চট্টগ্রাম…
বাংলালিংক-এর ত্রাণ কার্যক্রমের…
সাহারা খাতুনের মৃত্যুতে…

বৃহস্পতিবার শবে বরাত, তবে…

করোনাভাইরাসের তাণ্ডবে বিশ্বজুড়ে প্রাণহানি…

করোনাঃ মৃত্যু ১, নতুন…

হাটহাজারীতে এক হাজার পরিবারের…

বন্ধু নির্বাচন করনীয়