হাটহাজারীর অসুস্থ সাইফার পাশে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

সকালের কণ্ঠ

হাটহাজারী (চট্টগ্রাম ) প্রতিনিধি,সকালের কন্ঠঃ

হাটহাজারীর অসুস্থ সাইফার চিকিৎসার জন্য পাশে দাড়ালেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।তরুণ আওয়ামী লীগ নেতা কেন্দ্রীয় প্রচার ও প্রকাশনা উপ কমিটির অন্যতম সদস্য জনাব রাশেদুল ইসলামের আন্তরিক প্রচেষ্টায় সাইফার চিকিৎসার জন্য মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ব্যক্তিগত ত্রাণ তহবিল হতে ৫০ হাজার টাকার অনুদানের চেক সাইফার পরিবারকে হস্তান্তর করা হয়।

বিজ্ঞাপন

আজ হাটহাজারী উপজেলার মেখল ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের জাফরাবাদে স্থানীয় মুরিব্ব ও মহিলাদের সাথে রাশেদুল ইসলাম রাসেলের পূর্ব নির্ধারিত এক মত বিনিময় অনুষ্ঠানের পূর্বে এই চেক হস্থান্তর করেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ প্রচার ও প্রকাশনা কেন্দ্রীয় উপকমিটির সদস্য জনাব রাশেদুল ইসলাম রাসেল।

অসুস্থ সাইফা আকতার মুন্তার বয়স ৫ বছর। সেই হাটহাজারীর সিএনজি অটোরিকশা চালক মোহাম্মদ ছাবের এর কন্যা। হাটহাজারী উপজেলাস্থ ৮নং মেখল ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডে তাদের বাড়ি।
এর আগে স্থানীয় কৃষকলীগ নেতা জনাব নাজিম উদ্দিন রমজানের আগে তরুণ আওয়ামী লীগ নেতা জনাব রাসেদুল ইসলাম রাসেলের বাড়িতে গিয়েছিলেন অসুস্থ মুন্তার পিতা ছাবেরকে নিয়ে তার মেয়ের অসুস্থতার সংবাদ দিতে। শুনেই মানবতার ফেরিওয়ালা জনাব রাসেলের মনটা বিষন্ন হয়ে গিয়েছিল, এতো ছোট্ট একটা মেয়ের থ্যালাসেমিয়া! সাথে সাথেই হাটহাজারী ব্লাড ব্যাংকে ব্লাড এর ব্যবস্থা করার জন্য বলা হয় যাতে সাইফার যখনি ব্লাডের প্রয়োজন হয় তারা যেন ব্লাড ম্যানেজ করে দেয় আর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার বরাবর আবেদন করার জন্য প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমা করার জন্য সাইফার পরিবারকে অবগত করা হয়।
পরবর্তীতে ঈদের পর হাটহাজারী উপজেলার কয়েকজন ছাত্রলীগের কর্মীদের সাথে নিয়ে সাইফাকে দেখতে সাইফার বাড়িতে যান মানবতার ফেরিওয়ালা তরুণ আওয়ামীলীগ নেতা জনাব রাশেদুল ইসলাম রাসেল।
সাইফার বাবা জনাব ছাবের, জনাব রাসেলকে জানায়, আর্থিক অবস্থা খুবই খারাপ হওয়ায় চিকিৎসার জন্য যে পরিমাণ টাকা প্রয়োজন তা কৃষিকাজ ও সিএনজি অটোরিকশা চালিয়ে জোগাড় করা সম্ভব হচ্ছে না অসুস্ত সাইফা বাবার পক্ষে।

রাশেদুল ইসলাম রাসেল জানান,আপনারা যে কেউ এই সোনামণির সাথে কথা বললে বা এসে দেখে গেলে দেখবেন কত উচ্ছলিত ও উচ্ছ্বসিত থাকে সে সবসময়। ওর চোখের পানি দেখলে যে কারো হৃদয় ভেঙ্গে যাবে। আমি তো পারছিই না সহ্য করতে! আপনিও পারবেন না।

এই ছোট সোনামণির পাশে দাঁড়ানোর জন্য হাটহাজারীর সর্বস্থরের জনসাধারণের প্রতি আহবান জানান মানবতার ফেরিওয়ালা জনাব রাশেদুল ইসলাম রাসেল।
তিনি সংবাদমাধ্যমকে আরো বলেন, সকলে যদি এই ছোট্ট সোনামণির চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহায়তা করে ও দোয়া করে হয়তো সে এই উছিলায় আবারো স্বাভাবিকভাবে জীবন যাপন করতে পারবে।
আপনারা সাইফার বাবার সাথে সরাসরি যোগাযোগ করে কিংবা সরাসরি বাড়িতে গিয়ে তাকে দেখে আর্থিক সহায়তা করতে পারেন।
সাইফার পিতা জনাব মোহাম্মদ ছাবেরঃ 01813680299

(Visited 1 times, 1 visits today)

আরও পড়ুন

রংপুর মেডিকেলে করোনা…
সিলেটের রাস্তায় পড়ে…
চান্দিনায় করোনা ভাইরাস…
কাতারে করোনায় ১…
রাউজানে করোনা প্রতিরোধে…
করোনা প্রতিরোধে ব্যতিক্রমী…
কলকাতায় লকডাউনে সংসার…
ইতালিতে করোনায় একদিনেই…
বাংলাদেশের স্বাধীনতা দিবসে…

রংপুর মেডিকেলে করোনা ইউনিটে…

সিলেটের রাস্তায় পড়ে থাকা…

কাতারে করোনায় ১ বাংলাদেশির…

বাংলাদেশের স্বাধীনতা দিবসে পাক…

করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে রাত…